বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাঙচুরের প্রতিবাদে বিএডিসিতে মানববন্ধন

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য ভাঙচুর ও অবমূল্যায়নের প্রতিবাদে রাজধানীর দিলকুশায় বিএডিসি’র সদর দফতরস্থ কৃষি ভবনসহ বিএডিসি’র সরেজমিন দফতর সমন্বয়ে সমগ্র বাংলাদেশের ৩৫টি স্থানে একযোগে গতকাল সকাল সাড়ে ১১টায় মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন করপোরেশনের (বিএডিসি) বঙ্গবন্ধু পরিষদ কর্তৃক আয়োজিত এই মানববন্ধনে বিএডিসি’র সর্বস্তরের কর্মকর্তা, কর্মচারী, সিবিএসহ সব পেশাজীবী সংগঠনের নেতারা অংশগ্রহণ করেন।

স্বাধীন বাংলাদেশের মহান স্থপতি, বাঙালির মুক্তিসংগ্রামের মহানায়ক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান আমাদের স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্বের প্রতীক। যার জন্ম না হলে বাংলাদেশ পেতাম না, বঙ্গবন্ধু মানেই বাংলাদেশ। বঙ্গবন্ধু, মুক্তিযুদ্ধ ও বাংলাদেশ এক ও অভিন্ন সত্তা। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের অবমাননা স্বাধীন সার্বভৌম বাংলাদেশকে অবমাননার শামিল। ১৯৭১ সালে যারা বাংলাদেশের বিরোধিতা করেছিল, যারা ’৭৫ সেই কালরাতে বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে বঙ্গবন্ধুর নাম মুছে দিতে চেয়েছিল সেই প্রতিক্রিয়াশীল, স্বাধীনতাবিরোধী ও উগ্র জঙ্গিবাদী গোষ্ঠী বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য শিল্পের বিরুদ্ধে উসকানিমূলক হুমকি-বক্তব্যের মাধ্যমে জনমনে বিভ্রান্তি সৃষ্টি করছে এবং বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যের অবমাননার অপচেষ্টা করছে। ইতোমধ্যেই তারা কুষ্টিয়ায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নির্মাণাধীন ভাস্কর্য ভাঙচুর করেছে, যা কেবল ধৃষ্টতা নয় বরং রাষ্ট্রদ্রোহিতার নামান্তর। তাদের এই দুষ্কর্ম বাংলাদেশের অসাম্প্রদায়িক চেতনার পরিপন্থি। তাদের এসব কর্মকা- মুক্তিযুদ্ধ, স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্বের প্রতি হুমকিস্বরূপ। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি।

বুধবার, ৩০ ডিসেম্বর ২০২০ , ১৫ পৌষ ১৪২৭, ১৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪২

বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাঙচুরের প্রতিবাদে বিএডিসিতে মানববন্ধন

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য ভাঙচুর ও অবমূল্যায়নের প্রতিবাদে রাজধানীর দিলকুশায় বিএডিসি’র সদর দফতরস্থ কৃষি ভবনসহ বিএডিসি’র সরেজমিন দফতর সমন্বয়ে সমগ্র বাংলাদেশের ৩৫টি স্থানে একযোগে গতকাল সকাল সাড়ে ১১টায় মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন করপোরেশনের (বিএডিসি) বঙ্গবন্ধু পরিষদ কর্তৃক আয়োজিত এই মানববন্ধনে বিএডিসি’র সর্বস্তরের কর্মকর্তা, কর্মচারী, সিবিএসহ সব পেশাজীবী সংগঠনের নেতারা অংশগ্রহণ করেন।

স্বাধীন বাংলাদেশের মহান স্থপতি, বাঙালির মুক্তিসংগ্রামের মহানায়ক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান আমাদের স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্বের প্রতীক। যার জন্ম না হলে বাংলাদেশ পেতাম না, বঙ্গবন্ধু মানেই বাংলাদেশ। বঙ্গবন্ধু, মুক্তিযুদ্ধ ও বাংলাদেশ এক ও অভিন্ন সত্তা। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের অবমাননা স্বাধীন সার্বভৌম বাংলাদেশকে অবমাননার শামিল। ১৯৭১ সালে যারা বাংলাদেশের বিরোধিতা করেছিল, যারা ’৭৫ সেই কালরাতে বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে বঙ্গবন্ধুর নাম মুছে দিতে চেয়েছিল সেই প্রতিক্রিয়াশীল, স্বাধীনতাবিরোধী ও উগ্র জঙ্গিবাদী গোষ্ঠী বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য শিল্পের বিরুদ্ধে উসকানিমূলক হুমকি-বক্তব্যের মাধ্যমে জনমনে বিভ্রান্তি সৃষ্টি করছে এবং বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যের অবমাননার অপচেষ্টা করছে। ইতোমধ্যেই তারা কুষ্টিয়ায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নির্মাণাধীন ভাস্কর্য ভাঙচুর করেছে, যা কেবল ধৃষ্টতা নয় বরং রাষ্ট্রদ্রোহিতার নামান্তর। তাদের এই দুষ্কর্ম বাংলাদেশের অসাম্প্রদায়িক চেতনার পরিপন্থি। তাদের এসব কর্মকা- মুক্তিযুদ্ধ, স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্বের প্রতি হুমকিস্বরূপ। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি।