সামান্য উত্থানেই লেনদেন দুই হাজার কোটির ঘরে

একদিন আগেই টাকার পরিমাণে লেনদেন দুই হাজার কোটি টাকার নিচে নেমেছে। তবে গতকাল সূচকের সামান্য উত্থানেও লেনদেন আবার দুই হাজার কোটি টাকার ঘরে উঠেছে। এদিন সূচক বাড়লেও লেনদেনে অংশ নেয়া বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট দর কমেছে।

গতকাল ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ৮.৬৯ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৬ হাজার ২২.৩১ পয়েন্টে। ডিএসইর অন্য সূচকগুলোর মধ্যে ডিএসই-৩০ সূচক ৩.৯০ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২ হাজার ১৭৬.৮৮ পয়েন্টে। তবে শরিয়াহ সূচক ০.৫২ কমেছে। গতকাল ডিএসইতে টাকার পরিমাণে লেনদেন ২ হাজার ৩২ কোটি ৫৮ লাখ টাকার যা আগের দিন থেকে ২৯২ কোটি ৪২ লাখ টাকা বেশি। আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ১ হাজার ৭৪০ কোটি ১৬ লাখ টাকার।

ডিএসইতে গতকাল ৩৭২টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। এসব প্রতিষ্ঠানের মধ্যে শেয়ার দর বেড়েছে ১৫২টির বা ৪০.৮৬ শতাংশের, শেয়ার দর কমেছে ১৯৫টির বা ৫২.৪২ শতাংশের এবং ২৫টির বা ৬.৭২ শতাংশের শেয়ার ও ইউনিট দর অপরিবর্তিত রয়েছে।

অন্য শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ১২.৪৭ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ১৭ হাজার ৪৫২.৬৮ পয়েন্টে। সিএসইতে গতকাল ৩১৪টি প্রতিষ্ঠান লেনদেনে অংশ নিয়েছে। এসব প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ১১৭টির দর বেড়েছে, কমেছে ১৭৫টির আর ২২টির দর অপরিবর্তিত রয়েছে। সিএসইতে ৯০ কোটি ৭৭ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে।

গতকাল ডিএসই’র ব্লক মার্কেটে ৫৩টি কোম্পানি লেনদেনে অংশ নিয়েছে। এসব কোম্পানির ৪৫ কোটি টাকার লেনদেন হয়েছে। কোম্পানিগুলোর ১ কোটি ১৬ লাখ ৭০ হাজার ২২২টি শেয়ার ১০৬ বার হাত বদল হয়েছে। এর মাধ্যমে কোম্পানিগুলোর ৪৫ কোটি ২০ লাখ ৮ হাজার টাকার লেনদেন হয়েছে।

কোম্পানিগুলোর মধ্যে সবচেয়ে বেশি অর্থাৎ ১০ কোটি ৩৯ লাখ ৬৮ হাজার টাকার লেনদেন হয়েছে সাফকো স্পিনিংয়ের। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৯ কোটি ২২ লাখ ৫৩ হাজার টাকার জেনেক্সের এবং তৃতীয় সর্বোচ্চ ৪ কোটি ২৪ লাখ টাকার লেনদেন হয়েছে এশিয়া ইন্স্যুরেন্সের।

মঙ্গলবার ডিএসই লেনদেনে অংশ নেয়া প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে ১৯২টির বা ৫২.৪২ শতাংশের শেয়ার ও ইউনিট দর কমেছে। এদিন বিনিয়োগকারীদের আগ্রহ হারানোর শীর্ষে ছিল ইনটেক। গত সোমবার লেনদেন শেষে ইনটেকের শেয়ারের ক্লোজিং দর ছিল ৩৭.১০ টাকায়। গতকাল লেনদেন শেষে এর শেয়ারের ক্লোজিং দর দাঁড়ায় ৩৪.৯০ টাকায়। অর্থাৎ গতকাল কোম্পানিটির শেয়ার দর ২.২০ টাকা বা ৫.৯২ শতাংশ কমেছে। এর মাধ্যমে ইনটেক ডিএসইর টপটের লুজার তালিকার শীর্ষে উঠে আসে।

ডিএসইতে টপটেন লুজার তালিকায় উঠে আসা অন্য কোম্পানিগুলোর মধ্যে বাংলাদেশ ন্যাশনাল ইন্স্যুরেন্সের ৪.৬০ শতাংশ, এনআরবিসি ব্যাংকের ৪.২৩ শতাংশ, ইউনিয়ন ক্যাপিটালের ৪.১০ শতাংশ, ডেল্টা লাইফ ইন্স্যুরেন্সের ৩.৮৮ শতাংশ, আইএলএফএসএলের ৩.৭৭ শতাংশ, ডাচ-বাংলা ব্যাংকের ৩.৭০ শতাংশ, এবি ব্যাংকের ৩.৬৭ শতাংশ, জিবিবি পাওয়ারের ৩.৬৬ শতাংশ এবং প্রাইম ব্যাংকের শেয়ার দর ৩.৬৫ শতাংশ কমেছে।

গতকাল ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নেয়া প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে ১৫২টির বা ৪০.৮৬ শতাংশের শেয়ার ও ইউনিট দর বেড়েছে। এদিন এনার্জিপ্যাক পাওয়ারের শেয়ারের প্রতি বিনিয়োগকারীদের আগ্রহ ছিল সবচেয়ে বেশি। গত সোমবার লেনদেন শেষে এনার্জিপ্যাক পাওয়ার জেনারেশনের শেয়ারের ক্লোজিং দর ছিল ৫৪ টাকায়। গতকাল লেনদেন শেষে এর শেয়ারের ক্লোজিং দর দাঁড়ায় ৫৯.৪০ টাকায়। অর্থাৎ গতকাল কোম্পানিটির শেয়ার দর ৫.৪০ টাকা বা ১০ শতাংশ বেড়েছে। এর মাধ্যমে এনার্জিপ্যাক পাওয়ার জেনারেশন ডিএসইর টপটের গেইনার তালিকার শীর্ষে উঠে আসে। ডিএসইতে টপটেন গেইনার তালিকায় উঠে আসা অন্য কোম্পানিগুলোর মধ্যে সালভো কেমিক্যালের ১০ শতাংশ, অ্যাসোসিয়েটেড অক্সিজেনের ৯.৯৮ শতাংশ, এস আলমের ৯.৯৬ শতাংশ, রিলায়েন্স ইন্স্যুরেন্সের ৯.৯৬ শতাংশ, মীর আখতারের ৯.৯৩ শতাংশ, ঢাকা ইন্স্যুরেন্সের ৯.৯০ শতাংশ, ইউনাইটেড ইন্স্যুরেন্সের ৯.৯০ শতাংশ, রানার অটোমোবাইলসের ৯.৮৫ শতাংশ এবং ডমিনেজ স্টিলের শেয়ার দর ৯.৬৫ শতাংশ বেড়েছে।

বুধবার, ১৬ জুন ২০২১ , ২ আষাড় ১৪২৮ ৪ জিলকদ ১৪৪২

সামান্য উত্থানেই লেনদেন দুই হাজার কোটির ঘরে

image

একদিন আগেই টাকার পরিমাণে লেনদেন দুই হাজার কোটি টাকার নিচে নেমেছে। তবে গতকাল সূচকের সামান্য উত্থানেও লেনদেন আবার দুই হাজার কোটি টাকার ঘরে উঠেছে। এদিন সূচক বাড়লেও লেনদেনে অংশ নেয়া বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট দর কমেছে।

গতকাল ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ৮.৬৯ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৬ হাজার ২২.৩১ পয়েন্টে। ডিএসইর অন্য সূচকগুলোর মধ্যে ডিএসই-৩০ সূচক ৩.৯০ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২ হাজার ১৭৬.৮৮ পয়েন্টে। তবে শরিয়াহ সূচক ০.৫২ কমেছে। গতকাল ডিএসইতে টাকার পরিমাণে লেনদেন ২ হাজার ৩২ কোটি ৫৮ লাখ টাকার যা আগের দিন থেকে ২৯২ কোটি ৪২ লাখ টাকা বেশি। আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ১ হাজার ৭৪০ কোটি ১৬ লাখ টাকার।

ডিএসইতে গতকাল ৩৭২টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। এসব প্রতিষ্ঠানের মধ্যে শেয়ার দর বেড়েছে ১৫২টির বা ৪০.৮৬ শতাংশের, শেয়ার দর কমেছে ১৯৫টির বা ৫২.৪২ শতাংশের এবং ২৫টির বা ৬.৭২ শতাংশের শেয়ার ও ইউনিট দর অপরিবর্তিত রয়েছে।

অন্য শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ১২.৪৭ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ১৭ হাজার ৪৫২.৬৮ পয়েন্টে। সিএসইতে গতকাল ৩১৪টি প্রতিষ্ঠান লেনদেনে অংশ নিয়েছে। এসব প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ১১৭টির দর বেড়েছে, কমেছে ১৭৫টির আর ২২টির দর অপরিবর্তিত রয়েছে। সিএসইতে ৯০ কোটি ৭৭ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে।

গতকাল ডিএসই’র ব্লক মার্কেটে ৫৩টি কোম্পানি লেনদেনে অংশ নিয়েছে। এসব কোম্পানির ৪৫ কোটি টাকার লেনদেন হয়েছে। কোম্পানিগুলোর ১ কোটি ১৬ লাখ ৭০ হাজার ২২২টি শেয়ার ১০৬ বার হাত বদল হয়েছে। এর মাধ্যমে কোম্পানিগুলোর ৪৫ কোটি ২০ লাখ ৮ হাজার টাকার লেনদেন হয়েছে।

কোম্পানিগুলোর মধ্যে সবচেয়ে বেশি অর্থাৎ ১০ কোটি ৩৯ লাখ ৬৮ হাজার টাকার লেনদেন হয়েছে সাফকো স্পিনিংয়ের। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৯ কোটি ২২ লাখ ৫৩ হাজার টাকার জেনেক্সের এবং তৃতীয় সর্বোচ্চ ৪ কোটি ২৪ লাখ টাকার লেনদেন হয়েছে এশিয়া ইন্স্যুরেন্সের।

মঙ্গলবার ডিএসই লেনদেনে অংশ নেয়া প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে ১৯২টির বা ৫২.৪২ শতাংশের শেয়ার ও ইউনিট দর কমেছে। এদিন বিনিয়োগকারীদের আগ্রহ হারানোর শীর্ষে ছিল ইনটেক। গত সোমবার লেনদেন শেষে ইনটেকের শেয়ারের ক্লোজিং দর ছিল ৩৭.১০ টাকায়। গতকাল লেনদেন শেষে এর শেয়ারের ক্লোজিং দর দাঁড়ায় ৩৪.৯০ টাকায়। অর্থাৎ গতকাল কোম্পানিটির শেয়ার দর ২.২০ টাকা বা ৫.৯২ শতাংশ কমেছে। এর মাধ্যমে ইনটেক ডিএসইর টপটের লুজার তালিকার শীর্ষে উঠে আসে।

ডিএসইতে টপটেন লুজার তালিকায় উঠে আসা অন্য কোম্পানিগুলোর মধ্যে বাংলাদেশ ন্যাশনাল ইন্স্যুরেন্সের ৪.৬০ শতাংশ, এনআরবিসি ব্যাংকের ৪.২৩ শতাংশ, ইউনিয়ন ক্যাপিটালের ৪.১০ শতাংশ, ডেল্টা লাইফ ইন্স্যুরেন্সের ৩.৮৮ শতাংশ, আইএলএফএসএলের ৩.৭৭ শতাংশ, ডাচ-বাংলা ব্যাংকের ৩.৭০ শতাংশ, এবি ব্যাংকের ৩.৬৭ শতাংশ, জিবিবি পাওয়ারের ৩.৬৬ শতাংশ এবং প্রাইম ব্যাংকের শেয়ার দর ৩.৬৫ শতাংশ কমেছে।

গতকাল ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নেয়া প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে ১৫২টির বা ৪০.৮৬ শতাংশের শেয়ার ও ইউনিট দর বেড়েছে। এদিন এনার্জিপ্যাক পাওয়ারের শেয়ারের প্রতি বিনিয়োগকারীদের আগ্রহ ছিল সবচেয়ে বেশি। গত সোমবার লেনদেন শেষে এনার্জিপ্যাক পাওয়ার জেনারেশনের শেয়ারের ক্লোজিং দর ছিল ৫৪ টাকায়। গতকাল লেনদেন শেষে এর শেয়ারের ক্লোজিং দর দাঁড়ায় ৫৯.৪০ টাকায়। অর্থাৎ গতকাল কোম্পানিটির শেয়ার দর ৫.৪০ টাকা বা ১০ শতাংশ বেড়েছে। এর মাধ্যমে এনার্জিপ্যাক পাওয়ার জেনারেশন ডিএসইর টপটের গেইনার তালিকার শীর্ষে উঠে আসে। ডিএসইতে টপটেন গেইনার তালিকায় উঠে আসা অন্য কোম্পানিগুলোর মধ্যে সালভো কেমিক্যালের ১০ শতাংশ, অ্যাসোসিয়েটেড অক্সিজেনের ৯.৯৮ শতাংশ, এস আলমের ৯.৯৬ শতাংশ, রিলায়েন্স ইন্স্যুরেন্সের ৯.৯৬ শতাংশ, মীর আখতারের ৯.৯৩ শতাংশ, ঢাকা ইন্স্যুরেন্সের ৯.৯০ শতাংশ, ইউনাইটেড ইন্স্যুরেন্সের ৯.৯০ শতাংশ, রানার অটোমোবাইলসের ৯.৮৫ শতাংশ এবং ডমিনেজ স্টিলের শেয়ার দর ৯.৬৫ শতাংশ বেড়েছে।