নতুন আইন করে ইসি গঠনের সুযোগ নেই : আইনমন্ত্রী

কোভিডের কারণে নতুন আইন প্রণয়ন করে ইসি গঠনের সুযোগ নেই জানিয়ে আইন, বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, সার্চ কমিটির মাধ্যমে নতুন নির্বাচন কমিশন (ইসি) গঠন করা হবে। গতকাল ইউনিভার্সিটি অব লিবারেল আর্টস (ইউল্যাব) ক্যাম্পাসে ‘স্মরণে শেখ মুজিব’ এর মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

আইনমন্ত্রী বলেন, ‘সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী তার সংবাদ সম্মেলনে পরিষ্কারভাবে বলেছেন, সার্চ কমিটির মাধ্যমে নতুন নির্বাচন কমিশন গঠন করা হবে। এর আগে যখন সার্চ কমিটি গঠন করা হয়েছিল তখন রাষ্ট্রপতি সব রাজনৈতিক দলের অভিমত নিয়েছিলেন। সবাই রাজি হওয়ার পরেই সার্চ কমিটির গেজেট হয়েছিল।’

আনিসুল হক বলেন, ‘যদিও সার্চ কমিটির গেজেটটা আইন নয়, কিন্তু এটা যেহেতু সবার কনসেন্স নিয়ে করা হয়েছিল ও রাষ্ট্রপতির সিদ্ধান্তে হয়েছিল, সেটা কিন্তু আইনের কাছাকাছি। আমি এখনও বলছি, এটা আইন নয়, আইনের কাছাকাছি। তারপরও এই সার্চ কমিটি দ্বারা কয়েকজন নির্বাচন কমিশনার মনোনীত করা হয়েছিল এবং ইসি গঠন করা হয়েছিল।’

আনিসুল হক বলেন, ‘আজকে নতুন করে কিছু বলার অবকাশ নেই। আমি এমন কথা বলছি না যে, ইসি গঠন নিয়ে যে আইনের কথা সংবিধানে বলা আছে, তা করবো না, কিন্তু করোনা পরিস্থিতি এবং এই ইসির মেয়াদ আগামী ফেব্রুয়ারিতে শেষ হয়ে যাবে। সবকিছু মিলিয়ে এখন আইন করে ইসি গঠন করা সম্ভব নয়। প্রধানমন্ত্রী যেটা বলেছেন সার্চ কমিটির মাধ্যমেই ইসি গঠিত হবে।’ এ বিষয়ে সরকারের পক্ষ থেকে সংলাপের বিষয়ে তিনি কিছু শোনেননি বলেও জানান।

শুক্রবার, ০৮ অক্টোবর ২০২১ , ২৩ আশ্বিন ১৪২৮ ৩০ সফর ১৪৪৩

নতুন আইন করে ইসি গঠনের সুযোগ নেই : আইনমন্ত্রী

কোভিডের কারণে নতুন আইন প্রণয়ন করে ইসি গঠনের সুযোগ নেই জানিয়ে আইন, বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, সার্চ কমিটির মাধ্যমে নতুন নির্বাচন কমিশন (ইসি) গঠন করা হবে। গতকাল ইউনিভার্সিটি অব লিবারেল আর্টস (ইউল্যাব) ক্যাম্পাসে ‘স্মরণে শেখ মুজিব’ এর মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

আইনমন্ত্রী বলেন, ‘সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী তার সংবাদ সম্মেলনে পরিষ্কারভাবে বলেছেন, সার্চ কমিটির মাধ্যমে নতুন নির্বাচন কমিশন গঠন করা হবে। এর আগে যখন সার্চ কমিটি গঠন করা হয়েছিল তখন রাষ্ট্রপতি সব রাজনৈতিক দলের অভিমত নিয়েছিলেন। সবাই রাজি হওয়ার পরেই সার্চ কমিটির গেজেট হয়েছিল।’

আনিসুল হক বলেন, ‘যদিও সার্চ কমিটির গেজেটটা আইন নয়, কিন্তু এটা যেহেতু সবার কনসেন্স নিয়ে করা হয়েছিল ও রাষ্ট্রপতির সিদ্ধান্তে হয়েছিল, সেটা কিন্তু আইনের কাছাকাছি। আমি এখনও বলছি, এটা আইন নয়, আইনের কাছাকাছি। তারপরও এই সার্চ কমিটি দ্বারা কয়েকজন নির্বাচন কমিশনার মনোনীত করা হয়েছিল এবং ইসি গঠন করা হয়েছিল।’

আনিসুল হক বলেন, ‘আজকে নতুন করে কিছু বলার অবকাশ নেই। আমি এমন কথা বলছি না যে, ইসি গঠন নিয়ে যে আইনের কথা সংবিধানে বলা আছে, তা করবো না, কিন্তু করোনা পরিস্থিতি এবং এই ইসির মেয়াদ আগামী ফেব্রুয়ারিতে শেষ হয়ে যাবে। সবকিছু মিলিয়ে এখন আইন করে ইসি গঠন করা সম্ভব নয়। প্রধানমন্ত্রী যেটা বলেছেন সার্চ কমিটির মাধ্যমেই ইসি গঠিত হবে।’ এ বিষয়ে সরকারের পক্ষ থেকে সংলাপের বিষয়ে তিনি কিছু শোনেননি বলেও জানান।