লকডাউনে পরিবহন চালক-শ্রমিকদের কথা ভাবতে হবে

করোনার মহামারীর ফলে চলমান লকডাউনে দিন দিন মানুষের অর্থনৈতিক অবস্থার অবনতি হচ্ছে। এতে করে দরিদ্র এমনকি নিম্ন মধ্যবিত্ত শ্রেণীরও হিমশিম খেতে হচ্ছে পরিবারের জীবিকা-নির্বাহ করতে। কর্মক্ষেত্র এবং আয়ও অনেকাংশে কমে আসছে। কিন্তু খরচ কমছে না। বিশেষ করে বর্তমানে গাড়ি চালকদের অবস্থা খুবই শোচনীয়। অন্যদিকে নিত্যপণ্যের দাম বাড়ায় তারা আরও বিপাকে পড়েছেন। বাস, পাবলিক পরিবহনের সঙ্গে জড়িত পেশাজীবী মানুষের উপার্জন নেই বললেই চলে। রোজার মাসে খরচ অনেক বেশি কিন্তু আয় নাই সেই তুলনায়। ফলে অনেক পরিবারে না খেয়ে কাটাচ্ছে অনেকে। যদিও চলমান লকডাউন নিঃসন্দেহে একটি মহৎ উদ্যোগ। সরকারকে চলমান লাগাতার লকডাউনে চালকদের অবস্থা সম্পর্কে চিন্তা করা উচিত। সে অনুযায়ী পরিকল্পনা গ্রহণ করতে হবে।

মো. শামীম হাসান

বুধবার, ২১ এপ্রিল ২০২১ , ৮ বৈশাখ ১৪২৮ ৮ রমজান ১৪৪২

লকডাউনে পরিবহন চালক-শ্রমিকদের কথা ভাবতে হবে

করোনার মহামারীর ফলে চলমান লকডাউনে দিন দিন মানুষের অর্থনৈতিক অবস্থার অবনতি হচ্ছে। এতে করে দরিদ্র এমনকি নিম্ন মধ্যবিত্ত শ্রেণীরও হিমশিম খেতে হচ্ছে পরিবারের জীবিকা-নির্বাহ করতে। কর্মক্ষেত্র এবং আয়ও অনেকাংশে কমে আসছে। কিন্তু খরচ কমছে না। বিশেষ করে বর্তমানে গাড়ি চালকদের অবস্থা খুবই শোচনীয়। অন্যদিকে নিত্যপণ্যের দাম বাড়ায় তারা আরও বিপাকে পড়েছেন। বাস, পাবলিক পরিবহনের সঙ্গে জড়িত পেশাজীবী মানুষের উপার্জন নেই বললেই চলে। রোজার মাসে খরচ অনেক বেশি কিন্তু আয় নাই সেই তুলনায়। ফলে অনেক পরিবারে না খেয়ে কাটাচ্ছে অনেকে। যদিও চলমান লকডাউন নিঃসন্দেহে একটি মহৎ উদ্যোগ। সরকারকে চলমান লাগাতার লকডাউনে চালকদের অবস্থা সম্পর্কে চিন্তা করা উচিত। সে অনুযায়ী পরিকল্পনা গ্রহণ করতে হবে।

মো. শামীম হাসান