চিঠি : নিয়োগ পরীক্ষা হোক জেলা বা বিভাগীয়

নিয়োগ পরীক্ষা হোক জেলা বা বিভাগীয়

দেশে সরকারি-বেসরকারি বেশির ভাগ চাকরির নিয়োগ পরীক্ষা নেয়া হয় রাজধানী শহর ঢাকায়। ঢাকার স্থায়ী বসিন্দা ও অস্থায়ীভাবে বসবাসবাসকারী ছাড়া দেশের অনেকের জন্য এটি বেশ জটিল সমস্যা। দেশের নানাপ্রান্ত থেকে অনেক পরীক্ষার্থী চাকরির নিয়োগ পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে। তাদের দীর্ঘ সময় ট্রেন বা বাসে যাত্রা করতে হয় ঢাকায়। যাওয়া-আসায় যাত্রাপথে ক্লান্তি, থাকা ও খাওয়ার সমস্যা তো আছেই। অনেকের থাকার জায়গা নেই। ফলে তাদের বাড়তি খরচ হয়।

অনেকেই এ সমস্যা এড়াতে রাতে যাত্রা করেন, কেননা পরদিন তাদের পরীক্ষা। যাত্রাপথে জ্যাম থাকলে বা অনাকাক্সিক্ষত কোন ঘটনা ঘটলে অনেকেই পরীক্ষায় অংশ নিতে পারেন না। আবার দীর্ঘ জার্নির পর সকালবেলা নেমেই কেন্দ্রে চলে যেতে হয়, বিশ্রাম পাওয়া যায় না। তাই সঙ্গতকারণেই পরীক্ষা ভালো হওয়ার কথা নয়।

বিশেষ করে নারী প্রার্থীরা বেশি সমস্যায় ভোগেন। দেশের একপ্রান্ত থেকে তাকে একা যেতে হয়। নয় তো নিরাপত্তার জন্য সঙ্গে কোনো আত্মীয়কে নিতে হয়। এতে পথ কিছুটা সহজ হলেও অনেকের জন্য ব্যয়বহুল। তাই অনেক পরীক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে পারেন না। এসব কথা বিবেচনা করে সরকারি-বেসরকারি চাকরির নিয়োগ পরীক্ষাগুলো জেলা বা বিভাগীয় শহরে অনুষ্ঠিত হলে বেকার, গরিব, মেধাবী, নারীসহ সব শিক্ষার্থীর জন্য মঙ্গল। আশাকরি সংশ্লিষ্টরা বিষয়টি বিবেচনা করবেন।

মো. ওয়াহেদুজ্জামান

রংপুর

আরও খবর

শুক্রবার, ২২ অক্টোবর ২০২১ , ০৬ কার্তিক ১৪২৮ ১৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

চিঠি : নিয়োগ পরীক্ষা হোক জেলা বা বিভাগীয়

নিয়োগ পরীক্ষা হোক জেলা বা বিভাগীয়

দেশে সরকারি-বেসরকারি বেশির ভাগ চাকরির নিয়োগ পরীক্ষা নেয়া হয় রাজধানী শহর ঢাকায়। ঢাকার স্থায়ী বসিন্দা ও অস্থায়ীভাবে বসবাসবাসকারী ছাড়া দেশের অনেকের জন্য এটি বেশ জটিল সমস্যা। দেশের নানাপ্রান্ত থেকে অনেক পরীক্ষার্থী চাকরির নিয়োগ পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে। তাদের দীর্ঘ সময় ট্রেন বা বাসে যাত্রা করতে হয় ঢাকায়। যাওয়া-আসায় যাত্রাপথে ক্লান্তি, থাকা ও খাওয়ার সমস্যা তো আছেই। অনেকের থাকার জায়গা নেই। ফলে তাদের বাড়তি খরচ হয়।

অনেকেই এ সমস্যা এড়াতে রাতে যাত্রা করেন, কেননা পরদিন তাদের পরীক্ষা। যাত্রাপথে জ্যাম থাকলে বা অনাকাক্সিক্ষত কোন ঘটনা ঘটলে অনেকেই পরীক্ষায় অংশ নিতে পারেন না। আবার দীর্ঘ জার্নির পর সকালবেলা নেমেই কেন্দ্রে চলে যেতে হয়, বিশ্রাম পাওয়া যায় না। তাই সঙ্গতকারণেই পরীক্ষা ভালো হওয়ার কথা নয়।

বিশেষ করে নারী প্রার্থীরা বেশি সমস্যায় ভোগেন। দেশের একপ্রান্ত থেকে তাকে একা যেতে হয়। নয় তো নিরাপত্তার জন্য সঙ্গে কোনো আত্মীয়কে নিতে হয়। এতে পথ কিছুটা সহজ হলেও অনেকের জন্য ব্যয়বহুল। তাই অনেক পরীক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে পারেন না। এসব কথা বিবেচনা করে সরকারি-বেসরকারি চাকরির নিয়োগ পরীক্ষাগুলো জেলা বা বিভাগীয় শহরে অনুষ্ঠিত হলে বেকার, গরিব, মেধাবী, নারীসহ সব শিক্ষার্থীর জন্য মঙ্গল। আশাকরি সংশ্লিষ্টরা বিষয়টি বিবেচনা করবেন।

মো. ওয়াহেদুজ্জামান

রংপুর