শীর্ষ ইলেকট্রনিক্স প্রতিষ্ঠান হতে যাচ্ছে ওয়ালটন

‘বাংলাদেশ এখন ইলেকট্রনিক্স এবং কম্পিউটার পণ্যের গুরুত্বপূর্ণ বাজার। বিদেশি পণ্যের চেয়ে ক্রেতারা দেশে উৎপাদিত পণ্যে বেশি আস্থা রাখছেন। পাশাপাশি বিশ^জুড়ে ‘মেইড ইন বাংলাদেশ’ ট্যাগযুক্ত ইলেক্ট্রনিক্স এবং কম্পিউটার পণ্যের জনপ্রিয়তা বাড়ছে। বাংলাদেশি প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন ৪০টিরও বেশি দেশে পণ্য রপ্তানি করছে। এখন ওয়ালটনের লক্ষ্য ২০৩০ সালের মধ্যে বিশে^র শীর্ষ ইলেকট্রনিক্স ব্র্যান্ড হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করা’। ওয়ার্ল্ড কংগ্রেস অন ইনফরমেশন টেকনোলজি-২০২১ শীর্ষক এক আন্তর্জাতিক সম্মেলনে এসব কথা বলেন ওয়ালটন ডিজি-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের ডেপুটি ম্যানেজিং ডিরেক্টর (ডিএমডি) প্রকৌশলী মোঃ লিয়াকত আলী। রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে গত ১১-১৪ নভেম্বর অনুষ্ঠিত ওই সম্মেলনের আয়োজক ছিলো বাংলাদেশ সরকারের আইসিটি মন্ত্রণালয়। এতে সরকারি প্রতিনিধিদের পাশাপাশি দেশি-বিদেশি আইটি উদ্যোক্তা ও বিশেষজ্ঞগণ অংশ নেন।

কংগ্রেসে ‘বাংলাদেশ গোয়িং গ্লোবাল’ শীর্ষক সেমিনারে প্যানেল বক্তা ছিলেন প্রকৌশলী মোঃ লিয়াকত আলী। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়ের ব্যবসায় প্রশাসন ইনস্টিটিউটের পরিচালক অধ্যাপক ড. সৈয়দ ফারহাত আনোয়ার। এতে টেকসই ডিজিটাল পার্টনারশিপ, দক্ষ মানব সম্পদ উন্নয়ন, বাংলাদেশে বিনিয়োগের সুবিধা, আইটি খাতে দেশীয় প্রতিষ্ঠানগুলোর চ্যালেঞ্জ এবং সম্ভাবনা, বৈশি^ক বাজারে বাংলাদেশি প্রতিষ্ঠানগুলোর প্রতিযোগিতার সুযোগ এবং চতুর্থ শিল্প বিপ্লব এর প্রস্তুতি নিয়ে আলোচনা হয়।

ওয়ালটন ডিজি-টেকের ডিএমডি প্রকৌশলী মোঃ লিয়াকত আলী দেশে ইলেকট্রনিক্স এবং আইটি পণ্য উৎপাদনে ব্যাপক সম্ভাবনা এবং এই খাতে ওয়ালটনের সাফল্য তুলে ধরেন। তিনি বলেন, একমাত্র বাংলাদেশি প্রতিষ্ঠান হিসেবে বর্তমানে দেশেই ল্যাপটপ, ডেস্কটপ, কম্পিউটার এক্সেসরিজ এবং প্রিন্টেট সার্কিট বোর্ড উৎপাদন, বাজারজাত ও রপ্তানিতে উল্লেখযোগ্য সাফল্য দেখাচ্ছে ওয়ালটন। চতুর্থ শিল্প বিপ্লবকে কেন্দ্রে রেখে ওয়ালটন কাজ করে যাচ্ছে। দেশে দক্ষ মানবসম্পদ ব্যবস্থাপনা বিষয়ে এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, এ খাতে দক্ষ মানবসম্পদ উন্নয়ন এবং ব্যবস্থাপনায় নিজস্ব উদ্যোগের পাশাপাশি সরকারি উদ্যোগগুলোর সঙ্গে ওয়ালটন নিবিড়ভাবে কাজ করছে। সেমিনারে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ হাইটেক পার্ক কর্তৃপক্ষের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ডা. বিকর্ত কুমার ঘোষ, ডিজিকন টেকনোলজিস লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ওয়াহিদ শরিফ, সাউথটেক লিমিটেডের সেলস ডিরেক্টর সাইয়েদা ওয়েদাদ কাদের এবং উল্কা গেমস লিমিটেডের প্রতিষ্ঠাতা ও সিইও জামিলুর রশিদ। উল্লেখ্য, ‘ওয়ার্ল্ড কংগ্রেস অন আইটি ২০২১ (WCIT 2021)’ শীর্ষক এই আন্তর্জাতিক সম্মেলনের প্লাটিনাম স্পন্সর ছিলো ওয়ালটন। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি।

রবিবার, ২১ নভেম্বর ২০২১ , ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৮ ১৫ রবিউস সানি ১৪৪৩

শীর্ষ ইলেকট্রনিক্স প্রতিষ্ঠান হতে যাচ্ছে ওয়ালটন

image

‘বাংলাদেশ এখন ইলেকট্রনিক্স এবং কম্পিউটার পণ্যের গুরুত্বপূর্ণ বাজার। বিদেশি পণ্যের চেয়ে ক্রেতারা দেশে উৎপাদিত পণ্যে বেশি আস্থা রাখছেন। পাশাপাশি বিশ^জুড়ে ‘মেইড ইন বাংলাদেশ’ ট্যাগযুক্ত ইলেক্ট্রনিক্স এবং কম্পিউটার পণ্যের জনপ্রিয়তা বাড়ছে। বাংলাদেশি প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন ৪০টিরও বেশি দেশে পণ্য রপ্তানি করছে। এখন ওয়ালটনের লক্ষ্য ২০৩০ সালের মধ্যে বিশে^র শীর্ষ ইলেকট্রনিক্স ব্র্যান্ড হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করা’। ওয়ার্ল্ড কংগ্রেস অন ইনফরমেশন টেকনোলজি-২০২১ শীর্ষক এক আন্তর্জাতিক সম্মেলনে এসব কথা বলেন ওয়ালটন ডিজি-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের ডেপুটি ম্যানেজিং ডিরেক্টর (ডিএমডি) প্রকৌশলী মোঃ লিয়াকত আলী। রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে গত ১১-১৪ নভেম্বর অনুষ্ঠিত ওই সম্মেলনের আয়োজক ছিলো বাংলাদেশ সরকারের আইসিটি মন্ত্রণালয়। এতে সরকারি প্রতিনিধিদের পাশাপাশি দেশি-বিদেশি আইটি উদ্যোক্তা ও বিশেষজ্ঞগণ অংশ নেন।

কংগ্রেসে ‘বাংলাদেশ গোয়িং গ্লোবাল’ শীর্ষক সেমিনারে প্যানেল বক্তা ছিলেন প্রকৌশলী মোঃ লিয়াকত আলী। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়ের ব্যবসায় প্রশাসন ইনস্টিটিউটের পরিচালক অধ্যাপক ড. সৈয়দ ফারহাত আনোয়ার। এতে টেকসই ডিজিটাল পার্টনারশিপ, দক্ষ মানব সম্পদ উন্নয়ন, বাংলাদেশে বিনিয়োগের সুবিধা, আইটি খাতে দেশীয় প্রতিষ্ঠানগুলোর চ্যালেঞ্জ এবং সম্ভাবনা, বৈশি^ক বাজারে বাংলাদেশি প্রতিষ্ঠানগুলোর প্রতিযোগিতার সুযোগ এবং চতুর্থ শিল্প বিপ্লব এর প্রস্তুতি নিয়ে আলোচনা হয়।

ওয়ালটন ডিজি-টেকের ডিএমডি প্রকৌশলী মোঃ লিয়াকত আলী দেশে ইলেকট্রনিক্স এবং আইটি পণ্য উৎপাদনে ব্যাপক সম্ভাবনা এবং এই খাতে ওয়ালটনের সাফল্য তুলে ধরেন। তিনি বলেন, একমাত্র বাংলাদেশি প্রতিষ্ঠান হিসেবে বর্তমানে দেশেই ল্যাপটপ, ডেস্কটপ, কম্পিউটার এক্সেসরিজ এবং প্রিন্টেট সার্কিট বোর্ড উৎপাদন, বাজারজাত ও রপ্তানিতে উল্লেখযোগ্য সাফল্য দেখাচ্ছে ওয়ালটন। চতুর্থ শিল্প বিপ্লবকে কেন্দ্রে রেখে ওয়ালটন কাজ করে যাচ্ছে। দেশে দক্ষ মানবসম্পদ ব্যবস্থাপনা বিষয়ে এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, এ খাতে দক্ষ মানবসম্পদ উন্নয়ন এবং ব্যবস্থাপনায় নিজস্ব উদ্যোগের পাশাপাশি সরকারি উদ্যোগগুলোর সঙ্গে ওয়ালটন নিবিড়ভাবে কাজ করছে। সেমিনারে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ হাইটেক পার্ক কর্তৃপক্ষের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ডা. বিকর্ত কুমার ঘোষ, ডিজিকন টেকনোলজিস লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ওয়াহিদ শরিফ, সাউথটেক লিমিটেডের সেলস ডিরেক্টর সাইয়েদা ওয়েদাদ কাদের এবং উল্কা গেমস লিমিটেডের প্রতিষ্ঠাতা ও সিইও জামিলুর রশিদ। উল্লেখ্য, ‘ওয়ার্ল্ড কংগ্রেস অন আইটি ২০২১ (WCIT 2021)’ শীর্ষক এই আন্তর্জাতিক সম্মেলনের প্লাটিনাম স্পন্সর ছিলো ওয়ালটন। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি।