বিড়ির ওপর ১০ শতাংশ অগ্রিম আয়কর প্রত্যাহারের দাবি

সপ্তাহে ৬ দিন শ্রমিকদের কাজের ব্যবস্থা, বিড়ির উপর শুল্ক কমানো, বিড়ির উপর অর্পিত ১০ শতাংশ অগ্রিম আয়কর প্রত্যাহার, তামাকের ন্যায্যমূল্য নির্ধারণ, নকল বিড়ি উচ্ছেদসহ পাঁচ দফা দাবিতে কুষ্টিয়ায় মানববন্ধন করেছে বিড়ি শ্রমিক ও তামাক চাষীরা। গতকাল কুষ্টিয়া জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

কুষ্টিয়া জেলা বিড়ি সংগ্রাম পরিষদের সাধারণ সম্পাদক ও বাংলাদেশ বিড়ি শ্রমিক ফেডারেশনের সহ-সভাপতি মো. নাজিম উদ্দিনের সভাপতিত্বে ও বিড়ি শ্রমিক নেতা তরুন শেখ এর সঞ্চালনায় মানববন্ধনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কুষ্টিয়া জেলা আওয়ামী লীগের শ্রমবিষয়ক সম্পাদক গোলাম মোস্তফা। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য প্রদান করেন কুষ্টিয়া জেলা তাঁতী লীগের সভাপতি ডাক্তার আমির হোসেন বাচ্চু। বক্তব্য প্রদান করেন বাংলাদেশ বিড়ি শ্রমিক ফেডারেশনের যুগ্ম-সম্পাদক মো. হারিক হোসেন, প্রচার সম্পাদক শামীম ইসলাম প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, ‘কুষ্টিয়া ও এতদঅঞ্চলের মাটিতে বালির পরিমাণ বেশি হওয়ায় অন্য কোন ফসলের ফলন ভালো হয় না। ফলে তামাক চাষ করে সংসার চালাতে হয়। তামাক ব্যবহৃত হয় বিড়ি শিল্পে। কিন্তু বিদেশি বহুজাতিক তামাক কোম্পানীর ষড়যন্ত্রে বিড়িতে মাত্রাতিক্ত করারোপের কারখানাগুলো বন্ধ হয়ে যাচ্ছে। বিড়ি কারখানা বন্ধ হওয়ায় তামাক চাষীদের উৎপাদিত তামাক বিক্রয় করতে পারছে না।

বৃহস্পতিবার, ৩০ ডিসেম্বর ২০২১ , ২০ পৌষ ১৪২৮ ২৫ জমাদিউল আউয়াল

বিড়ির ওপর ১০ শতাংশ অগ্রিম আয়কর প্রত্যাহারের দাবি

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

সপ্তাহে ৬ দিন শ্রমিকদের কাজের ব্যবস্থা, বিড়ির উপর শুল্ক কমানো, বিড়ির উপর অর্পিত ১০ শতাংশ অগ্রিম আয়কর প্রত্যাহার, তামাকের ন্যায্যমূল্য নির্ধারণ, নকল বিড়ি উচ্ছেদসহ পাঁচ দফা দাবিতে কুষ্টিয়ায় মানববন্ধন করেছে বিড়ি শ্রমিক ও তামাক চাষীরা। গতকাল কুষ্টিয়া জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

কুষ্টিয়া জেলা বিড়ি সংগ্রাম পরিষদের সাধারণ সম্পাদক ও বাংলাদেশ বিড়ি শ্রমিক ফেডারেশনের সহ-সভাপতি মো. নাজিম উদ্দিনের সভাপতিত্বে ও বিড়ি শ্রমিক নেতা তরুন শেখ এর সঞ্চালনায় মানববন্ধনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কুষ্টিয়া জেলা আওয়ামী লীগের শ্রমবিষয়ক সম্পাদক গোলাম মোস্তফা। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য প্রদান করেন কুষ্টিয়া জেলা তাঁতী লীগের সভাপতি ডাক্তার আমির হোসেন বাচ্চু। বক্তব্য প্রদান করেন বাংলাদেশ বিড়ি শ্রমিক ফেডারেশনের যুগ্ম-সম্পাদক মো. হারিক হোসেন, প্রচার সম্পাদক শামীম ইসলাম প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, ‘কুষ্টিয়া ও এতদঅঞ্চলের মাটিতে বালির পরিমাণ বেশি হওয়ায় অন্য কোন ফসলের ফলন ভালো হয় না। ফলে তামাক চাষ করে সংসার চালাতে হয়। তামাক ব্যবহৃত হয় বিড়ি শিল্পে। কিন্তু বিদেশি বহুজাতিক তামাক কোম্পানীর ষড়যন্ত্রে বিড়িতে মাত্রাতিক্ত করারোপের কারখানাগুলো বন্ধ হয়ে যাচ্ছে। বিড়ি কারখানা বন্ধ হওয়ায় তামাক চাষীদের উৎপাদিত তামাক বিক্রয় করতে পারছে না।