ঈদে দীর্ঘ ছুটির ফাঁদে পড়ছে দেশ

ঈদে লম্বা ছুটির ফাঁদে পড়ছে দেশ। একদিনের ঐচ্ছিক ছুটি পেলেই টানা নয়দিন ছুটি ভোগ করতে পারবেন সরকারি চাকরিজীবীরা। আগামী ৫ মে সরকার সাধারণ ছুটি ঘোষণা হলে টানা ৯ দিনের ছুটি পাবেন সরকারি কর্মীরা। যদিও ইতোমধ্যে ওইদিন সাধারণ ছুটি ঘোষণার কথা নাকচ করেছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়। টানা ছুটির কারণে ইতোমধ্যেই রাজধানী ছাড়তে শুরু করেছেন মানুষজন। ঢাকার চিরচেনা যানজটও কমতে শুরু করেছে।

সরকারি ক্যালেন্ডারে আগামী ২ থেকে ৪ মে তিন দিন ঈদের ছুটি নির্ধারিত আছে। তার আগে ১ মে শ্রমিক দিবস অর্থাৎ মে দিবসের ছুটি। এর আগে ২৯ ও ৩০ এপ্রিল যথাক্রমে শুক্র ও শনিবার সাপ্তাহিক ছুটি। ফলে এবার কার্যত ঈদের ছুটি ২৯ এপ্রিল শুরু হচ্ছে। গত দুদিনই রাজধানী ছেড়ে যাওয়া বাস, ট্রেন ও নৌযানগুলোতে মানুষের ভিড় দেখা গেছে।

ঈদের ছুটির পর ৫ মে বৃহস্পতিবার অফিস-আদালত খোলা। এর পর ৬ ও ৭ মে যথাক্রমে শুক্র ও শনিবার সাপ্তাহিক ছুটি। এ হিসাবে ৫ মে সাধারণ ছুটি ঘোষণা হলে বা সরকারি কর্মীদের যারা ঐচ্ছিক ছুটি পাবে তারা টানা ৯ দিনের ছুটি পাবেন। এতে লম্বা ছুটির ফাঁদে পড়বে দেশ।

ঈদের পর ৫ মে ছুটি হবে কি-না, সে বিষয়ে প্রশাসনের কর্মকর্তাদের মাঝে আলোচনা রয়েছে। তারা বলছেন, একদিন ছুটি হলে টানা ৯ দিন ছুটি কাটাতে পারবেন তারা। এটি হলে ঈদযাত্রায় যানবাহনের চাপ কমানোর পাশাপাশি ঘরমুখো মানুষের যাতাযাতেও সুবিধা হবে বলে সরকারি কর্মচারীদের অনেকেই মনে করছেন।

আগামী ৫ মে ছুটির বিষয়টি ইতোমধ্যে নাকচ করে দিয়েছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়। এ বিষয়ে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব কেএম আলী আজম গত সপ্তাহে সাংবাদিকদের বলেন, কেউ যদি ৫ মে ছুটি না নিয়ে অফিসে অনুপস্থিত থাকেন তবে আগে-পেছনের সব ছুটি তার ছুটি থেকে কাটা যাবে।

সিনিয়র সচিব বলেন, ৫ মে ছুটি নিলে টানা অনেক দিনের ছুটি হচ্ছে, এটা এভাবেই পড়েছে। কর্মচারীদের ‘অপশনাল ছুটির’ একটা বিষয় আছে। যারা ৫ মে ছুটি নেবে, তারা ধারাবাহিকভাবে ছুটিটা ভোগ করতে পারবে। যারা ছুটি নেবে না, তাদের ওইদিন অফিস করতে হবে।

জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, কোন কর্মকর্তা-কর্মচারীকে মে দিবস, ঈদ ও সাপ্তাহিক মিলে টানা ৯ দিনের ছুটি ভোগ করতে হলে তাদের ৫ মে ছুটি নিতে হবে। কেউ যদি ৫ মে ছুটি না নিয়ে কর্মস্থলে অনুপস্থিত থাকে ওই সময়ের আগে-পরের ছুটি তার নিজের ছুটি থেকে কাটা যাবে।

চাঁদ দেখা সাপেক্ষে আগামী ২ বা ৩ মে দেশে মুসলিম সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব ‘ঈদুল ফিতর’ উদযাপিত হবে। রমজান মাস ২৯ দিনে শেষ হলে ঈদ হবে ২ মে, আর ৩০ দিন পূর্ণ হলে ঈদ হবে ৩ মে।

বৃহস্পতিবার, ২৮ এপ্রিল ২০২২ , ১৫ বৈশাখ ১৪২৮ ২৬ রমাদ্বান ১৪৪৩

ঈদে দীর্ঘ ছুটির ফাঁদে পড়ছে দেশ

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

ঈদে লম্বা ছুটির ফাঁদে পড়ছে দেশ। একদিনের ঐচ্ছিক ছুটি পেলেই টানা নয়দিন ছুটি ভোগ করতে পারবেন সরকারি চাকরিজীবীরা। আগামী ৫ মে সরকার সাধারণ ছুটি ঘোষণা হলে টানা ৯ দিনের ছুটি পাবেন সরকারি কর্মীরা। যদিও ইতোমধ্যে ওইদিন সাধারণ ছুটি ঘোষণার কথা নাকচ করেছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়। টানা ছুটির কারণে ইতোমধ্যেই রাজধানী ছাড়তে শুরু করেছেন মানুষজন। ঢাকার চিরচেনা যানজটও কমতে শুরু করেছে।

সরকারি ক্যালেন্ডারে আগামী ২ থেকে ৪ মে তিন দিন ঈদের ছুটি নির্ধারিত আছে। তার আগে ১ মে শ্রমিক দিবস অর্থাৎ মে দিবসের ছুটি। এর আগে ২৯ ও ৩০ এপ্রিল যথাক্রমে শুক্র ও শনিবার সাপ্তাহিক ছুটি। ফলে এবার কার্যত ঈদের ছুটি ২৯ এপ্রিল শুরু হচ্ছে। গত দুদিনই রাজধানী ছেড়ে যাওয়া বাস, ট্রেন ও নৌযানগুলোতে মানুষের ভিড় দেখা গেছে।

ঈদের ছুটির পর ৫ মে বৃহস্পতিবার অফিস-আদালত খোলা। এর পর ৬ ও ৭ মে যথাক্রমে শুক্র ও শনিবার সাপ্তাহিক ছুটি। এ হিসাবে ৫ মে সাধারণ ছুটি ঘোষণা হলে বা সরকারি কর্মীদের যারা ঐচ্ছিক ছুটি পাবে তারা টানা ৯ দিনের ছুটি পাবেন। এতে লম্বা ছুটির ফাঁদে পড়বে দেশ।

ঈদের পর ৫ মে ছুটি হবে কি-না, সে বিষয়ে প্রশাসনের কর্মকর্তাদের মাঝে আলোচনা রয়েছে। তারা বলছেন, একদিন ছুটি হলে টানা ৯ দিন ছুটি কাটাতে পারবেন তারা। এটি হলে ঈদযাত্রায় যানবাহনের চাপ কমানোর পাশাপাশি ঘরমুখো মানুষের যাতাযাতেও সুবিধা হবে বলে সরকারি কর্মচারীদের অনেকেই মনে করছেন।

আগামী ৫ মে ছুটির বিষয়টি ইতোমধ্যে নাকচ করে দিয়েছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়। এ বিষয়ে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব কেএম আলী আজম গত সপ্তাহে সাংবাদিকদের বলেন, কেউ যদি ৫ মে ছুটি না নিয়ে অফিসে অনুপস্থিত থাকেন তবে আগে-পেছনের সব ছুটি তার ছুটি থেকে কাটা যাবে।

সিনিয়র সচিব বলেন, ৫ মে ছুটি নিলে টানা অনেক দিনের ছুটি হচ্ছে, এটা এভাবেই পড়েছে। কর্মচারীদের ‘অপশনাল ছুটির’ একটা বিষয় আছে। যারা ৫ মে ছুটি নেবে, তারা ধারাবাহিকভাবে ছুটিটা ভোগ করতে পারবে। যারা ছুটি নেবে না, তাদের ওইদিন অফিস করতে হবে।

জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, কোন কর্মকর্তা-কর্মচারীকে মে দিবস, ঈদ ও সাপ্তাহিক মিলে টানা ৯ দিনের ছুটি ভোগ করতে হলে তাদের ৫ মে ছুটি নিতে হবে। কেউ যদি ৫ মে ছুটি না নিয়ে কর্মস্থলে অনুপস্থিত থাকে ওই সময়ের আগে-পরের ছুটি তার নিজের ছুটি থেকে কাটা যাবে।

চাঁদ দেখা সাপেক্ষে আগামী ২ বা ৩ মে দেশে মুসলিম সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব ‘ঈদুল ফিতর’ উদযাপিত হবে। রমজান মাস ২৯ দিনে শেষ হলে ঈদ হবে ২ মে, আর ৩০ দিন পূর্ণ হলে ঈদ হবে ৩ মে।