ব্রেন টিউমারে আক্রান্ত রিকশা চালক গিয়াস বাঁচতে চায়

গিয়াস উদ্দিন (৪৩) ব্রেন টিউমারে আক্রান্ত। তিনি পেশায় অটো রিক্সা চালক এবং সংসারের একমাত্র উপার্জনক্ষম ব্যক্তি। তার মা, স্ত্রী আর দুই মেয়ে নিয়ে বসবাস। গত ৫ বছর আগে বড় মেয়েকে বিয়ে দিয়েছেন জমানো টাকা দিয়ে। বসত-ভিটা ও ক্ষেতের জমি বলতে কিছুই নেই গিয়াসের। থাকেন অন্যের বাড়িতে ভাড়ায়। গিয়াস এর স্ত্রী লতা বেগম ছাত্রদের মেসে রান্নার কাজ করে কোন রকমে সংসারের হাল ধরেছেন। প্রতিদিন ওষুধ কিনতে খরচ হয় ১০০-১৫০টাকার মত।

নওগাঁ সদর উপজেলার বাঙ্গাবাড়িয়া মহল্লার মৃত ইয়াকুব আলীর বড় ছেলে গিয়াস উদ্দিনের অসুস্থতার ফলে দিশেহারা হয়ে মানবেতর জীবন-যাপন করছে পরিবার। অর্থের কারণে করানো যাচ্ছেনা অপারেশনও। তাই স্বামীকে বাঁচাতে সকলের কাছে সহযোগীতা কামনা করেছেন তার স্ত্রী লতা বেগম।

গত বছরের শেষের দিকে সিরাজগঞ্জ খাজা ইউনুস আলী মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের নিউরোলজী বিশেষজ্ঞ প্রফেসর ফজলুল হকের কাছে গেলে পূনারায় টেষ্ট করোনার পর রিপোর্টগুলো দেখে তিনি জানান, ব্রেন টিউমার গুরুত্বর আকার ধারন করেছে। ওষুধে সাময়িকভাবে কিছুটা ভালো থাকলেও পুরোপুরি সুস্থ্য হতে অপারেশন করাতে হবে। আর অপারেশন বাবদ খরচ হবে প্রায় ৭লক্ষ টাকা। টাকার অভাবে অপারেশ না করাতে পেরে বর্তমানে গিয়াসের শারীরিক অবস্থা আরো অবনতির দিকে। সহায়তার জন্য যোগাযোগ, লতা বেগম (নগদ)-০১৩২-১৪৯০০২২, ভাই নাজমুল হাসান (বিকাশ) ০১৭১৮১০৯০৪০।

শুক্রবার, ২৯ এপ্রিল ২০২২ , ১৬ বৈশাখ ১৪২৮ ২৭ রমাদ্বান ১৪৪৩

মানুষ মানুষের জন্য

ব্রেন টিউমারে আক্রান্ত রিকশা চালক গিয়াস বাঁচতে চায়

প্রতিনিধি, নওগাঁ

গিয়াস উদ্দিন (৪৩) ব্রেন টিউমারে আক্রান্ত। তিনি পেশায় অটো রিক্সা চালক এবং সংসারের একমাত্র উপার্জনক্ষম ব্যক্তি। তার মা, স্ত্রী আর দুই মেয়ে নিয়ে বসবাস। গত ৫ বছর আগে বড় মেয়েকে বিয়ে দিয়েছেন জমানো টাকা দিয়ে। বসত-ভিটা ও ক্ষেতের জমি বলতে কিছুই নেই গিয়াসের। থাকেন অন্যের বাড়িতে ভাড়ায়। গিয়াস এর স্ত্রী লতা বেগম ছাত্রদের মেসে রান্নার কাজ করে কোন রকমে সংসারের হাল ধরেছেন। প্রতিদিন ওষুধ কিনতে খরচ হয় ১০০-১৫০টাকার মত।

নওগাঁ সদর উপজেলার বাঙ্গাবাড়িয়া মহল্লার মৃত ইয়াকুব আলীর বড় ছেলে গিয়াস উদ্দিনের অসুস্থতার ফলে দিশেহারা হয়ে মানবেতর জীবন-যাপন করছে পরিবার। অর্থের কারণে করানো যাচ্ছেনা অপারেশনও। তাই স্বামীকে বাঁচাতে সকলের কাছে সহযোগীতা কামনা করেছেন তার স্ত্রী লতা বেগম।

গত বছরের শেষের দিকে সিরাজগঞ্জ খাজা ইউনুস আলী মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের নিউরোলজী বিশেষজ্ঞ প্রফেসর ফজলুল হকের কাছে গেলে পূনারায় টেষ্ট করোনার পর রিপোর্টগুলো দেখে তিনি জানান, ব্রেন টিউমার গুরুত্বর আকার ধারন করেছে। ওষুধে সাময়িকভাবে কিছুটা ভালো থাকলেও পুরোপুরি সুস্থ্য হতে অপারেশন করাতে হবে। আর অপারেশন বাবদ খরচ হবে প্রায় ৭লক্ষ টাকা। টাকার অভাবে অপারেশ না করাতে পেরে বর্তমানে গিয়াসের শারীরিক অবস্থা আরো অবনতির দিকে। সহায়তার জন্য যোগাযোগ, লতা বেগম (নগদ)-০১৩২-১৪৯০০২২, ভাই নাজমুল হাসান (বিকাশ) ০১৭১৮১০৯০৪০।