মির্জা ফখরুল দিবাস্বপ্ন দেখছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

বাংলাদেশের পরিস্থিতি কখনো শ্রীলঙ্কার মতো হবে না বলে মন্তব্য করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেছেন বাংলাদেশের পরিস্থিতি শ্রীলঙ্কার মতো হবে বলে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর যে মন্তব্য করেছেন তাতে মনে হচ্ছে ‘উনি (মির্জা ফখরুল) তো দিবাস্বপ্ন দেখছেন। উনি স্বপ্ন দেখছেন বিএনপি ক্ষমতায় আসবে, এসে তারা দেশকে আবার অন্ধকার করে ফেলবেন।’ গতকাল দুপুরে খুলনা শিপইয়ার্ডে কোস্টগার্ডের এক অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপি স্বপ্ন দেখছে দেশকে আবার ২০০১ সালের মতো পিছিয়ে নিয়ে যাওয়ার। কিন্তু দেশের জনগণ তো তা চায় না। আমরা তো দেশের জনগণকে নিয়ে রাজনীতি করি। আমাদের রাজনীতি হলো জনগণকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার, দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার। আজ জনগণ তাদের (বিএনপি) প্রত্যাখ্যান করেছে। যতই তারা ডাক দিক, যত কিছু বলুক, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশকে যেভাবে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন, তাতে তার নেতৃত্বের প্রতি বাংলাদেশের মানুষের দৃঢ় বিশ্বাস রয়েছে। এ দেশের মানুষ বিশ্বাস করে বাংলাদেশকে এগিয়ে নিতে হলে শেখ হাসিনার বিকল্প নেই।’

ঈদের পর বিএনপির আন্দোলনের ঘোষণার সমালোচনা করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেন, ‘জনগণ যদি সঙ্গে না থাকে, কোন আন্দোলনই সফল হবে না। এখন জনগণ বুঝে গেছে উন্নয়ন ও স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে হলে প্রধানমন্ত্রী যেভাবে চলছেন, তাকে পূর্ণ সমর্থন দিতে হবে।’

বর্তমানে দক্ষিণ এশিয়ার অনেক দেশে বিশৃঙ্খলা চলছে, বাংলাদেশে এমন হওয়ার আশঙ্কা আছে? এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘আমাদের আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী অত্যন্ত দক্ষ। যেকোন চ্যালেঞ্জ তারা মোকাবিলা করতে পারে। এবার ঈদের সময় কোন জায়গায় কোন ভোগান্তি হয়নি, চুরি-ডাকাতি হয়নি, ছিনতাই হয়নি। আমি মনে করি, আমাদের আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী দেশপ্রেম নিয়ে কাজ করে। সেজন্যই এটা সম্ভব হয়েছে।’

মন্ত্রী দেশের মাথাপিছু আয়ের কথা উল্লেখ করে বলেন, ‘২০০৮ সালে যখন আমরা ক্ষমতায় আসি, তখন দেশের মানুষের মাথাপিছু আয় ছিল ৬০০ ডলারের নিচে। আজকে হয়েছে ২ হাজার ৮২৪ ডলার। দেশ যে একটা দুর্বার গতিতে এগিয়ে চলছে, এটা তারই প্রকৃষ্ট উদাহরণ। প্রধানমন্ত্রী স্বপ্ন দেখেন এবং তা বাস্তবায়ন করেন। এ কারণে তার জনপ্রিয়তা আকাশচুম্বী।’

বৃহস্পতিবার, ১২ মে ২০২২ , ২৯ বৈশাখ ১৪২৮ ০৯ শাওয়াল ১৪৪৩

মির্জা ফখরুল দিবাস্বপ্ন দেখছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

বাংলাদেশের পরিস্থিতি কখনো শ্রীলঙ্কার মতো হবে না বলে মন্তব্য করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেছেন বাংলাদেশের পরিস্থিতি শ্রীলঙ্কার মতো হবে বলে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর যে মন্তব্য করেছেন তাতে মনে হচ্ছে ‘উনি (মির্জা ফখরুল) তো দিবাস্বপ্ন দেখছেন। উনি স্বপ্ন দেখছেন বিএনপি ক্ষমতায় আসবে, এসে তারা দেশকে আবার অন্ধকার করে ফেলবেন।’ গতকাল দুপুরে খুলনা শিপইয়ার্ডে কোস্টগার্ডের এক অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপি স্বপ্ন দেখছে দেশকে আবার ২০০১ সালের মতো পিছিয়ে নিয়ে যাওয়ার। কিন্তু দেশের জনগণ তো তা চায় না। আমরা তো দেশের জনগণকে নিয়ে রাজনীতি করি। আমাদের রাজনীতি হলো জনগণকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার, দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার। আজ জনগণ তাদের (বিএনপি) প্রত্যাখ্যান করেছে। যতই তারা ডাক দিক, যত কিছু বলুক, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশকে যেভাবে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন, তাতে তার নেতৃত্বের প্রতি বাংলাদেশের মানুষের দৃঢ় বিশ্বাস রয়েছে। এ দেশের মানুষ বিশ্বাস করে বাংলাদেশকে এগিয়ে নিতে হলে শেখ হাসিনার বিকল্প নেই।’

ঈদের পর বিএনপির আন্দোলনের ঘোষণার সমালোচনা করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেন, ‘জনগণ যদি সঙ্গে না থাকে, কোন আন্দোলনই সফল হবে না। এখন জনগণ বুঝে গেছে উন্নয়ন ও স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে হলে প্রধানমন্ত্রী যেভাবে চলছেন, তাকে পূর্ণ সমর্থন দিতে হবে।’

বর্তমানে দক্ষিণ এশিয়ার অনেক দেশে বিশৃঙ্খলা চলছে, বাংলাদেশে এমন হওয়ার আশঙ্কা আছে? এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘আমাদের আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী অত্যন্ত দক্ষ। যেকোন চ্যালেঞ্জ তারা মোকাবিলা করতে পারে। এবার ঈদের সময় কোন জায়গায় কোন ভোগান্তি হয়নি, চুরি-ডাকাতি হয়নি, ছিনতাই হয়নি। আমি মনে করি, আমাদের আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী দেশপ্রেম নিয়ে কাজ করে। সেজন্যই এটা সম্ভব হয়েছে।’

মন্ত্রী দেশের মাথাপিছু আয়ের কথা উল্লেখ করে বলেন, ‘২০০৮ সালে যখন আমরা ক্ষমতায় আসি, তখন দেশের মানুষের মাথাপিছু আয় ছিল ৬০০ ডলারের নিচে। আজকে হয়েছে ২ হাজার ৮২৪ ডলার। দেশ যে একটা দুর্বার গতিতে এগিয়ে চলছে, এটা তারই প্রকৃষ্ট উদাহরণ। প্রধানমন্ত্রী স্বপ্ন দেখেন এবং তা বাস্তবায়ন করেন। এ কারণে তার জনপ্রিয়তা আকাশচুম্বী।’