রামপালে হামলায় যুবলীগ নেতা আহত ৩

বাগেরহাটের রামপাল উপজেলায় দলীয় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে একই দলের প্রতিপক্ষের হামলায় ৩ আওয়ামী যুবলীগ নেতা আহত হয়েছেন। আহত নেতাদের খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এরা হলেন রামপাল উপজেলার গিলাতলা গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য ও ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি মল্লিক মিজানুর রহমান (৪০), তার ভাতিজা মল্লিক অভি (২৯) ও জাহাঙ্গীর হোসেন (৪০)।

হাসপাতালে চিকিৎসাধিন আহত অভি মল্লিক বৃহস্পতিবার সকালে জানান, আমাদের এলাকার পরিবেশ নষ্ট করার জন্য একটি কুচক্রী মহল অপচেষ্টা চালাচ্ছে। এরই ধারাবাহিকতায় নাশকতা মামলার আসামিসহ চিহ্নিত সন্ত্রাসীরা বুধবার সকালে হামলা করে আমাদের আহত করেছে। তারা আমাদের হত্যার চেষ্টা চালিয়েছে।

আমরা জীবনের নিরাপত্তাহীনতায় দিন কাটাচ্ছি। যে কোন সময় আমাদের ওপর আবারও হামলা হতে পারে। আহত যুবলীগের ইউনিয়ন সভাপতি মল্লিক মিজানুর রহমান জানান হাইব্রিড সন্ত্রাসীরা আমাদের ওপর প্রকাশ্য জনস্মুখে হামলা করেছে। হামলাকারীদের পক্ষ থেকে বলা হয় এলাকার হায়দার মল্লিকের সাথে একই এলাকার লাকি বেগমের বিরোধ হয়েছে। লাকি বেগমকে মারপিট করতে গেলে গ্রামবাসী ক্ষিপ্ত হয়ে প্রতিহত করতে গিয়ে তারা আহত হয়েছে।

গত বৃহস্পতিবার সকালে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত রামপাল থানায় দুই পক্ষ থেকেই মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছিল বলে থানার ওসি সামছু উদ্দিন জানান।

শুক্রবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২২ , ০৭ আশ্বিন ১৪২৯ ২৫ সফর ১৪৪৪

রামপালে হামলায় যুবলীগ নেতা আহত ৩

জেলা বার্তা পরিবেশক, বাগেরহাট

বাগেরহাটের রামপাল উপজেলায় দলীয় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে একই দলের প্রতিপক্ষের হামলায় ৩ আওয়ামী যুবলীগ নেতা আহত হয়েছেন। আহত নেতাদের খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এরা হলেন রামপাল উপজেলার গিলাতলা গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য ও ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি মল্লিক মিজানুর রহমান (৪০), তার ভাতিজা মল্লিক অভি (২৯) ও জাহাঙ্গীর হোসেন (৪০)।

হাসপাতালে চিকিৎসাধিন আহত অভি মল্লিক বৃহস্পতিবার সকালে জানান, আমাদের এলাকার পরিবেশ নষ্ট করার জন্য একটি কুচক্রী মহল অপচেষ্টা চালাচ্ছে। এরই ধারাবাহিকতায় নাশকতা মামলার আসামিসহ চিহ্নিত সন্ত্রাসীরা বুধবার সকালে হামলা করে আমাদের আহত করেছে। তারা আমাদের হত্যার চেষ্টা চালিয়েছে।

আমরা জীবনের নিরাপত্তাহীনতায় দিন কাটাচ্ছি। যে কোন সময় আমাদের ওপর আবারও হামলা হতে পারে। আহত যুবলীগের ইউনিয়ন সভাপতি মল্লিক মিজানুর রহমান জানান হাইব্রিড সন্ত্রাসীরা আমাদের ওপর প্রকাশ্য জনস্মুখে হামলা করেছে। হামলাকারীদের পক্ষ থেকে বলা হয় এলাকার হায়দার মল্লিকের সাথে একই এলাকার লাকি বেগমের বিরোধ হয়েছে। লাকি বেগমকে মারপিট করতে গেলে গ্রামবাসী ক্ষিপ্ত হয়ে প্রতিহত করতে গিয়ে তারা আহত হয়েছে।

গত বৃহস্পতিবার সকালে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত রামপাল থানায় দুই পক্ষ থেকেই মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছিল বলে থানার ওসি সামছু উদ্দিন জানান।