ইমরান খানের জামিন বাড়লো ৮ জুন পর্যন্ত

দেশটির সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে দুই মামলায় জামিনের মেয়াদ ৮ জুন পর্যন্ত বাড়িয়েছে ইসলামাবাদ হাইকোর্ট (আইএইচসি)। গতকাল মঙ্গলবার পাকিস্তানভিত্তিক গণমাধ্যম ডনের এক প্রতিবেদনে এমন তথ্য প্রকাশ করা হয়। প্রতিবেদনে বলা হয়, রাষ্ট্রীয় প্রতিষ্ঠানের শীর্ষ কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ তোলা এবং পিএমএল-এন নেতা মহসিন রাঞ্জাকে পিটিআই কর্মীদের দ্বারা হেনস্থা করা সংক্রান্ত দুটি মামলায় তাকে ৮ জুন পর্যন্ত জামিন দেয়া হয়েছে। ইমরানের আইনজীবী ব্যারিস্টার গোহর আদালতে হাজির হয়ে তার মক্কেলের ব্যক্তিগত উপস্থিতি থেকে অব্যাহতির আবেদন করেন। আদালত সেই আবেদন মঞ্জুর করেন।

প্রতিবেদনে আরো বলা হয়, আইএইচসির প্রধান বিচারপতি আমের ফারুক আদালতের প্রাঙ্গণ থেকে গ্রেফতার সংক্রান্ত একটি তথ্য প্রতিবেদন নিবন্ধনের বিষয়েও অনুসন্ধান করেছেন। এ ঘটনায় অ্যাটর্নি জেনারেল জানিয়েছিলেন, এই মামলায় সুপ্রিম কোর্টের রায় মুলতুবি রয়েছে। এর আগে গতকাল ইমরান খান অভিযোগ করেন, আগামী ১০ বছরের জন্য তাকে কারাগারে বন্দি রাখার পরিকল্পনা করা হচ্ছে।

তিনি আরো বলেন, লন্ডন পরিকল্পনা সম্পূর্ণভাবে প্রকাশ্যে চলে এসেছে। গ্রেফতার-পরবর্তী অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনার উপর ভিত্তি করে আমার বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহের অভিযোগ তোলার পরিকল্পনা করা হয়েছে। উল্লেখ্য, গত সপ্তাহে ইসলামাবাদ হাইকোর্ট প্রাঙ্গণ থেকে গ্রেফতার করা হয় ইমরানকে। পরে সুপ্রিম কোর্টের হস্তক্ষেপে জামিনে মুক্তি পান তিনি। এ ঘটনায় ক্ষুব্ধ ইমরানের সমর্থকরা রাস্তা অবরোধ করে সামরিক বিক্ষোভ চালায়। কয়েক মাস ধরে পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই) দলের নেতা ইমরান খান সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়ে প্রচার চালাচ্ছেন। ২০২২ সালে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা তার বিরুদ্ধে একটি হত্যা প্রচেষ্টায় জড়িত ছিলেন বলে দাবি করার কয়েক ঘণ্টা পর গত মঙ্গলবার তাকে গ্রেফতার করা হয়েছিল।

বুধবার, ১৭ মে ২০২৩ , ০৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩০, ২৬ শাওয়াল ১৪৪৪

ইমরান খানের জামিন বাড়লো ৮ জুন পর্যন্ত

দেশটির সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে দুই মামলায় জামিনের মেয়াদ ৮ জুন পর্যন্ত বাড়িয়েছে ইসলামাবাদ হাইকোর্ট (আইএইচসি)। গতকাল মঙ্গলবার পাকিস্তানভিত্তিক গণমাধ্যম ডনের এক প্রতিবেদনে এমন তথ্য প্রকাশ করা হয়। প্রতিবেদনে বলা হয়, রাষ্ট্রীয় প্রতিষ্ঠানের শীর্ষ কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ তোলা এবং পিএমএল-এন নেতা মহসিন রাঞ্জাকে পিটিআই কর্মীদের দ্বারা হেনস্থা করা সংক্রান্ত দুটি মামলায় তাকে ৮ জুন পর্যন্ত জামিন দেয়া হয়েছে। ইমরানের আইনজীবী ব্যারিস্টার গোহর আদালতে হাজির হয়ে তার মক্কেলের ব্যক্তিগত উপস্থিতি থেকে অব্যাহতির আবেদন করেন। আদালত সেই আবেদন মঞ্জুর করেন।

প্রতিবেদনে আরো বলা হয়, আইএইচসির প্রধান বিচারপতি আমের ফারুক আদালতের প্রাঙ্গণ থেকে গ্রেফতার সংক্রান্ত একটি তথ্য প্রতিবেদন নিবন্ধনের বিষয়েও অনুসন্ধান করেছেন। এ ঘটনায় অ্যাটর্নি জেনারেল জানিয়েছিলেন, এই মামলায় সুপ্রিম কোর্টের রায় মুলতুবি রয়েছে। এর আগে গতকাল ইমরান খান অভিযোগ করেন, আগামী ১০ বছরের জন্য তাকে কারাগারে বন্দি রাখার পরিকল্পনা করা হচ্ছে।

তিনি আরো বলেন, লন্ডন পরিকল্পনা সম্পূর্ণভাবে প্রকাশ্যে চলে এসেছে। গ্রেফতার-পরবর্তী অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনার উপর ভিত্তি করে আমার বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহের অভিযোগ তোলার পরিকল্পনা করা হয়েছে। উল্লেখ্য, গত সপ্তাহে ইসলামাবাদ হাইকোর্ট প্রাঙ্গণ থেকে গ্রেফতার করা হয় ইমরানকে। পরে সুপ্রিম কোর্টের হস্তক্ষেপে জামিনে মুক্তি পান তিনি। এ ঘটনায় ক্ষুব্ধ ইমরানের সমর্থকরা রাস্তা অবরোধ করে সামরিক বিক্ষোভ চালায়। কয়েক মাস ধরে পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই) দলের নেতা ইমরান খান সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়ে প্রচার চালাচ্ছেন। ২০২২ সালে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা তার বিরুদ্ধে একটি হত্যা প্রচেষ্টায় জড়িত ছিলেন বলে দাবি করার কয়েক ঘণ্টা পর গত মঙ্গলবার তাকে গ্রেফতার করা হয়েছিল।