বীমার টানে ঊর্ধ্বমুখী পুঁজিবাজার

বীমা খাতের শেয়ারের দাম বৃদ্ধিকে কেন্দ্র করে সপ্তাহের শেষ কর্মদিবস গতকাল দেশের পুঁজিবাজারে ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতায় লেনদেন হয়েছে। বীমা খাতের ৫৭টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে লেনদেন হয়েছে ৫৬টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার। তার মধ্যে দাম বেড়েছে ৫৩টির আর অপরিবর্তিত ছিল ৩টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার।

বীমা খাতের সব কয়টির দাম বাড়ায় ১০৫টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দাম বেড়েছে। তার বিপরীতে দাম কমেছে ৭০টির। আর অপরিবর্তিত ছিল ১৭৪টি কোম্পানির শেয়ার।

দাম কমার তুলনায় অধিকাংশ কোম্পানির শেয়ারের দাম বাড়ায় এদিন দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) প্রধান সূচক আগের দিনের চেয়ে ১৯ পয়েন্ট বেড়েছে। অপর পুঁজিবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) প্রধান সূচক বেড়েছে ৪১ পয়েন্ট। তবে লেনদেন আগের দিনের চেয়ে কিছুটা কমেছে।

ডিএসইর তথ্যমতে, গতকাল ৩৪৯টি প্রতিষ্ঠানের মোট ২০ কোটি ৪১ লাখ ১৮ হাজার ১৩৯টি শেয়ার ও ইউনিট কেনা-বেচা হয়েছে। তাতে ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ১ হাজার ৩৬ কোটি ৫৬ লাখ ৫৬ হাজার টাকা। এর আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ১ হাজার ১০৯ কোটি ৯৩ লাখ ৭৯ হাজার টাকার শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ড। সেই হিসাবে আগের দিনের চেয়ে লেনদেন কমেছে।

অধিকাংশ শেয়ারের দাম বাড়ায় এদিন ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স আগের দিনের চেয়ে ১৯ দশমিক ৮৩ পয়েন্ট বেড়ে ৬ হাজার ৩২৫ পয়েন্ট দাঁড়িয়েছে। ডিএসইর অন্য দুই সূচকের মধ্যে ডিএসই শরীয়াহ সূচক দশমিক ৯৪ পয়েন্ট বেড়ে ১ হাজার ৩৭০ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। ডিএসই ৩০ সূচক ৩ দশমিক ৪২ পয়েন্ট বেড়ে ২ হাজার ১৯৮ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে।

গতকাল ডিএসইতে লেনদেনের শীর্ষে ছিল অগ্রণী ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার। এরপর সবচেয়ে বেশি লেনদেন হয়েছে এশিয়া ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার। পরের তালিকায় রয়েছে এশিয়া প্যাসিফিক ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার। এছাড়া শীর্ষ ১০-এ ছিল যথাক্রমে- বাংলাদেশ জেনারেল ইন্স্যুরেন্স, বাংলাদেশ ন্যাশনাল ইন্স্যুরেন্স, সেন্ট্রাল ইন্স্যুরেন্স, সিটি ইন্স্যুরেন্স, চার্টার্ড ইন্স্যুরেন্স, কন্টিনেন্টাল ইন্স্যুরেন্স এবং ক্রিস্টাল ইনস্যুরেন্স লিমিটেডের শেয়ার।

এদিকে খাত ওয়ারী লেনদেনের শীর্ষে ছিল বীমা খাত। এ খাতের শেয়ার কেনা-বেচা মোট লেনদেনের ৩৩ শতাংশ অবদান রেখেছে। এরপর যথাক্রমে ওষুধ ও খাদ্য খাতের শেয়ার কেনা-বেচা থেকে লেনদেন হয়েছে মোট লেনদেনের ৯ এবং ৮ শতাংশ। অপর পুঁজিবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) প্রধান সূচক ৪১ দশমিক ৪৭ পয়েন্ট বেড়ে ১৮ হাজার ৬৩৭ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। এদিন সিএসইতে ২৩৭টি কোম্পানির শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। এরমধ্যে দাম বেড়েছে ৬৮টির, কমেছে ৬৮টির ও অপরিবর্তিত রয়েছে ১০১টির দাম। গতকাল দিন শেষে সিএসইতে ১৯ কোটি ৪০ লাখ ৪৯ হাজার ৫৪৩ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। এর আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ১৫ কোটি ১ লাখ ৯১ হাজার ২৭ টাকার শেয়ার ও ইউনিট।

শুক্রবার, ২৬ মে ২০২৩ , ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩০, ০৬ জিলক্বদ শাওয়াল ১৪৪৪

বীমার টানে ঊর্ধ্বমুখী পুঁজিবাজার

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

বীমা খাতের শেয়ারের দাম বৃদ্ধিকে কেন্দ্র করে সপ্তাহের শেষ কর্মদিবস গতকাল দেশের পুঁজিবাজারে ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতায় লেনদেন হয়েছে। বীমা খাতের ৫৭টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে লেনদেন হয়েছে ৫৬টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার। তার মধ্যে দাম বেড়েছে ৫৩টির আর অপরিবর্তিত ছিল ৩টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার।

বীমা খাতের সব কয়টির দাম বাড়ায় ১০৫টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দাম বেড়েছে। তার বিপরীতে দাম কমেছে ৭০টির। আর অপরিবর্তিত ছিল ১৭৪টি কোম্পানির শেয়ার।

দাম কমার তুলনায় অধিকাংশ কোম্পানির শেয়ারের দাম বাড়ায় এদিন দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) প্রধান সূচক আগের দিনের চেয়ে ১৯ পয়েন্ট বেড়েছে। অপর পুঁজিবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) প্রধান সূচক বেড়েছে ৪১ পয়েন্ট। তবে লেনদেন আগের দিনের চেয়ে কিছুটা কমেছে।

ডিএসইর তথ্যমতে, গতকাল ৩৪৯টি প্রতিষ্ঠানের মোট ২০ কোটি ৪১ লাখ ১৮ হাজার ১৩৯টি শেয়ার ও ইউনিট কেনা-বেচা হয়েছে। তাতে ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ১ হাজার ৩৬ কোটি ৫৬ লাখ ৫৬ হাজার টাকা। এর আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ১ হাজার ১০৯ কোটি ৯৩ লাখ ৭৯ হাজার টাকার শেয়ার ও মিউচুয়াল ফান্ড। সেই হিসাবে আগের দিনের চেয়ে লেনদেন কমেছে।

অধিকাংশ শেয়ারের দাম বাড়ায় এদিন ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স আগের দিনের চেয়ে ১৯ দশমিক ৮৩ পয়েন্ট বেড়ে ৬ হাজার ৩২৫ পয়েন্ট দাঁড়িয়েছে। ডিএসইর অন্য দুই সূচকের মধ্যে ডিএসই শরীয়াহ সূচক দশমিক ৯৪ পয়েন্ট বেড়ে ১ হাজার ৩৭০ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। ডিএসই ৩০ সূচক ৩ দশমিক ৪২ পয়েন্ট বেড়ে ২ হাজার ১৯৮ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে।

গতকাল ডিএসইতে লেনদেনের শীর্ষে ছিল অগ্রণী ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার। এরপর সবচেয়ে বেশি লেনদেন হয়েছে এশিয়া ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার। পরের তালিকায় রয়েছে এশিয়া প্যাসিফিক ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার। এছাড়া শীর্ষ ১০-এ ছিল যথাক্রমে- বাংলাদেশ জেনারেল ইন্স্যুরেন্স, বাংলাদেশ ন্যাশনাল ইন্স্যুরেন্স, সেন্ট্রাল ইন্স্যুরেন্স, সিটি ইন্স্যুরেন্স, চার্টার্ড ইন্স্যুরেন্স, কন্টিনেন্টাল ইন্স্যুরেন্স এবং ক্রিস্টাল ইনস্যুরেন্স লিমিটেডের শেয়ার।

এদিকে খাত ওয়ারী লেনদেনের শীর্ষে ছিল বীমা খাত। এ খাতের শেয়ার কেনা-বেচা মোট লেনদেনের ৩৩ শতাংশ অবদান রেখেছে। এরপর যথাক্রমে ওষুধ ও খাদ্য খাতের শেয়ার কেনা-বেচা থেকে লেনদেন হয়েছে মোট লেনদেনের ৯ এবং ৮ শতাংশ। অপর পুঁজিবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) প্রধান সূচক ৪১ দশমিক ৪৭ পয়েন্ট বেড়ে ১৮ হাজার ৬৩৭ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। এদিন সিএসইতে ২৩৭টি কোম্পানির শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। এরমধ্যে দাম বেড়েছে ৬৮টির, কমেছে ৬৮টির ও অপরিবর্তিত রয়েছে ১০১টির দাম। গতকাল দিন শেষে সিএসইতে ১৯ কোটি ৪০ লাখ ৪৯ হাজার ৫৪৩ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। এর আগের দিন লেনদেন হয়েছিল ১৫ কোটি ১ লাখ ৯১ হাজার ২৭ টাকার শেয়ার ও ইউনিট।