যানজটের নগরী ময়মনসিংহ

ময়মনসিংহ শহরে প্রতিদিন বাড়ছে অটোবাইক,মিশুক, ব্যাটারি চালিত রিকশার সংখ্যা। শিক্ষা নগরি খ্যাত ময়মনসিংহ মহানগরের স্থায়ী জনসংখ্যা প্রায় ৫,৭৬,৭২২ জন। জনবহুল এই শহরে দিনের পর দিন যানজট বেড়েই যাচ্ছে।

শহরের মুল কেন্দ্র গাংগিনারপাড়, সি কে ঘোষ রোড, চড়পাড়া মোড়, ব্রিজ সর্বদাই যানজট লেগেই থাকে। সি কে ঘোষ রোড রেলক্রসিং,নতুন বাজার রেলক্রসিং,সানকিপাড়া রেলক্রসিংয়র জায়গাসমূহে ট্রেন যাওয়ার পর প্রচুর যানজট তৈরি হয়। ময়মনসিংহ মেডিকেল সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ জায়গা যেখানে রোগিদের আনাগোনা সেই জায়গায় যানজট প্রতিটি সাধারণ মানুষের ভোগান্তির কারণ।এ থেকে পরিত্রাণ কোথায়!মেয়র মহোদয়, জেলা প্রশাসক পুলিশ সুপার এবং জেলা রিক্সা মালিক কল্যান সমিতির নেত্রীবৃন্দগণ, অটো মালিকদের নিয়ে একাধিক বৈঠক করেছেন এবং বিভিন্ন উদ্যোগ গ্রহণ করছেন।

তবে উদ্যোগ নিলেই হবে না সচেতন হতে হবে জনগণদের।বিশেষ করে ময়মনসিংহের রাস্তাগুলো যথেষ্ট প্রশস্ত নয়, ট্রাফিকপুলিশের অবস্থান স্বল্পতা,এছাড়া শহরের অটোগুলোর যাত্রী উঠানামার নির্দিষ্ট স্থান নির্ধারণ করা প্রয়োজন।রাস্তা নির্মানসহ পথচারী রাস্তা তৈরির বিভিন্ন উদ্যোগ মেয়র মহোদয় গ্রহন করলেও সচেতন নয় জনগন।পথচারী রাস্তায় ছোট ছোট ভ্রাম্যমাণ দোকান, ঘরবাড়ি নির্মাণের জন্য ইট, বালু দিয়ে রাস্তা আবদ্ধ করে রাখা হচ্ছে প্রতিনিয়ত। যার দরুণ ভোগান্তির শিকার হচ্ছে পথচারী।

সিটি কর্পোরেশন কর্তৃক ময়লা নেয়ার লোক নির্ধারিত থাকা সত্ত্বেও মানুষ রাস্তায় যেখানে সেখানে ময়লা ফেলছে, যা কিনা পরিবেশ দূষণসহ যানজটের অন্যতম কারণ। উপরিউক্ত বিষয়গুলোর প্রতি আরো নজর দেয়া প্রয়োজন কর্তৃপক্ষের,সচেতন হওয়া প্রয়োজন সাধারণ জনগণের।

আর্নিয়া খানম আন্নি

রবিবার, ১৯ নভেম্বর ২০২৩ , ৪ অগ্রায়ন ১৪৩০, ৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৫

যানজটের নগরী ময়মনসিংহ

ময়মনসিংহ শহরে প্রতিদিন বাড়ছে অটোবাইক,মিশুক, ব্যাটারি চালিত রিকশার সংখ্যা। শিক্ষা নগরি খ্যাত ময়মনসিংহ মহানগরের স্থায়ী জনসংখ্যা প্রায় ৫,৭৬,৭২২ জন। জনবহুল এই শহরে দিনের পর দিন যানজট বেড়েই যাচ্ছে।

শহরের মুল কেন্দ্র গাংগিনারপাড়, সি কে ঘোষ রোড, চড়পাড়া মোড়, ব্রিজ সর্বদাই যানজট লেগেই থাকে। সি কে ঘোষ রোড রেলক্রসিং,নতুন বাজার রেলক্রসিং,সানকিপাড়া রেলক্রসিংয়র জায়গাসমূহে ট্রেন যাওয়ার পর প্রচুর যানজট তৈরি হয়। ময়মনসিংহ মেডিকেল সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ জায়গা যেখানে রোগিদের আনাগোনা সেই জায়গায় যানজট প্রতিটি সাধারণ মানুষের ভোগান্তির কারণ।এ থেকে পরিত্রাণ কোথায়!মেয়র মহোদয়, জেলা প্রশাসক পুলিশ সুপার এবং জেলা রিক্সা মালিক কল্যান সমিতির নেত্রীবৃন্দগণ, অটো মালিকদের নিয়ে একাধিক বৈঠক করেছেন এবং বিভিন্ন উদ্যোগ গ্রহণ করছেন।

তবে উদ্যোগ নিলেই হবে না সচেতন হতে হবে জনগণদের।বিশেষ করে ময়মনসিংহের রাস্তাগুলো যথেষ্ট প্রশস্ত নয়, ট্রাফিকপুলিশের অবস্থান স্বল্পতা,এছাড়া শহরের অটোগুলোর যাত্রী উঠানামার নির্দিষ্ট স্থান নির্ধারণ করা প্রয়োজন।রাস্তা নির্মানসহ পথচারী রাস্তা তৈরির বিভিন্ন উদ্যোগ মেয়র মহোদয় গ্রহন করলেও সচেতন নয় জনগন।পথচারী রাস্তায় ছোট ছোট ভ্রাম্যমাণ দোকান, ঘরবাড়ি নির্মাণের জন্য ইট, বালু দিয়ে রাস্তা আবদ্ধ করে রাখা হচ্ছে প্রতিনিয়ত। যার দরুণ ভোগান্তির শিকার হচ্ছে পথচারী।

সিটি কর্পোরেশন কর্তৃক ময়লা নেয়ার লোক নির্ধারিত থাকা সত্ত্বেও মানুষ রাস্তায় যেখানে সেখানে ময়লা ফেলছে, যা কিনা পরিবেশ দূষণসহ যানজটের অন্যতম কারণ। উপরিউক্ত বিষয়গুলোর প্রতি আরো নজর দেয়া প্রয়োজন কর্তৃপক্ষের,সচেতন হওয়া প্রয়োজন সাধারণ জনগণের।

আর্নিয়া খানম আন্নি