এনবিআরের সদস্য হলেন মইনুল খান

জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) সদস্য হিসাবে পদোন্নতি পেয়েছেন ভ্যাট নিরীক্ষা, গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ড. মইনুল খান। গতকাল অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগের উপসচিব মো. আহসান হাবিবের সই করা আদেশ সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। মইনুল খানকে এনবিআরের শুল্ক ও আবগারি বিভাগের সদস্য হিসেবে নিযোগ করা হয়েছে।

২০২০ সালের জুন থেকে ভ্যাট নিরীক্ষা, গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরের মহাপরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন তিনি। এর আগে শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ও ঢাকা পশ্চিম কাস্টমস এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেটের কমিশনারসহ বিভিন্ন পদে দায়িত্ব পালন করেন।

মইনুল খান ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগে অনার্স ও মাস্টার্স করেছেন। সাংবাদিকতা দিয়ে কর্মজীবন শুরু করেন। ১৩তম বিসিএস পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়ে শুল্ক ও ভ্যাট প্রশাসনে যোগ দেন। ১৯৯৯-২০০১ সময়ে অস্ট্রেলিয়া সরকারের স্কলারশিপ নিয়ে ইউনিভার্সিটি অব কুইন্সল্যান্ড থেকে এমবিএ ডিগ্রি অর্জন করেন।

পরবর্তী সময়ে ওয়ার্ল্ড কাস্টমস অর্গানাইজেশনের বৃত্তি নিয়ে জাপানের জিআরআইপিএস থেকে পাবলিক ফাইন্যান্সে মাস্টার্স এবং অস্ট্রেলিয়ার ম্যাককুয়ারি ইউনিভার্সিটি হতে সেন্টার ফর পলিসিং ইন্টেলিজেন্স অ্যান্ড কাউন্টার টেররিজমে পিএইচডি ডিগ্রি সম্পন্ন করেন।

চাকরি এবং লেখাপড়ার পাশাপাশি সৃজনশীল কর্মকা-ের সঙ্গে সম্পৃক্ত তিনি। ‘স্বর্ণমানব’; ‘দেখিলাম তারে’সহ চারটি বই প্রকাশিত হয়েছে। পাশাপাশি নাট্যকার হিসেবেও সম্পৃক্ত। তিনি নাট্যকার সংঘের একজন সক্রিয় সদস্য। ইতোমধ্যে মইনুল খানের রচিত প্রায় ১৭টি নাটক নির্মিত হয়েছে।

মঙ্গলবার, ১০ মে ২০২২ , ২৭ বৈশাখ ১৪২৮ ০৭ শাওয়াল ১৪৪৩

এনবিআরের সদস্য হলেন মইনুল খান

জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) সদস্য হিসাবে পদোন্নতি পেয়েছেন ভ্যাট নিরীক্ষা, গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ড. মইনুল খান। গতকাল অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগের উপসচিব মো. আহসান হাবিবের সই করা আদেশ সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। মইনুল খানকে এনবিআরের শুল্ক ও আবগারি বিভাগের সদস্য হিসেবে নিযোগ করা হয়েছে।

২০২০ সালের জুন থেকে ভ্যাট নিরীক্ষা, গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরের মহাপরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন তিনি। এর আগে শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ও ঢাকা পশ্চিম কাস্টমস এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেটের কমিশনারসহ বিভিন্ন পদে দায়িত্ব পালন করেন।

মইনুল খান ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগে অনার্স ও মাস্টার্স করেছেন। সাংবাদিকতা দিয়ে কর্মজীবন শুরু করেন। ১৩তম বিসিএস পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়ে শুল্ক ও ভ্যাট প্রশাসনে যোগ দেন। ১৯৯৯-২০০১ সময়ে অস্ট্রেলিয়া সরকারের স্কলারশিপ নিয়ে ইউনিভার্সিটি অব কুইন্সল্যান্ড থেকে এমবিএ ডিগ্রি অর্জন করেন।

পরবর্তী সময়ে ওয়ার্ল্ড কাস্টমস অর্গানাইজেশনের বৃত্তি নিয়ে জাপানের জিআরআইপিএস থেকে পাবলিক ফাইন্যান্সে মাস্টার্স এবং অস্ট্রেলিয়ার ম্যাককুয়ারি ইউনিভার্সিটি হতে সেন্টার ফর পলিসিং ইন্টেলিজেন্স অ্যান্ড কাউন্টার টেররিজমে পিএইচডি ডিগ্রি সম্পন্ন করেন।

চাকরি এবং লেখাপড়ার পাশাপাশি সৃজনশীল কর্মকা-ের সঙ্গে সম্পৃক্ত তিনি। ‘স্বর্ণমানব’; ‘দেখিলাম তারে’সহ চারটি বই প্রকাশিত হয়েছে। পাশাপাশি নাট্যকার হিসেবেও সম্পৃক্ত। তিনি নাট্যকার সংঘের একজন সক্রিয় সদস্য। ইতোমধ্যে মইনুল খানের রচিত প্রায় ১৭টি নাটক নির্মিত হয়েছে।